স্ত্রী'-সন্তানকে বিদায় দিয়ে ট্রেনের জানালা ধরে অঝোরে কাঁদছেন ইউক্রেনীয়

ইউক্রেনে রুশ হা'মলা অব্যাহত রয়েছে। একের পর এক শহরে নিয়ন্ত্রণ প্রতিষ্ঠা করছেন রুশ সে'নারা। শত্রুর কামাল, গো'লা ও বো'মা হা'মলার মধ্যেও শহর ছাড়ছেন না কিয়েভবাসীরা। তারা কিয়েভকে রক্ষায় দৃঢ়প্রতিজ্ঞ।

তাদের মধ্যে একজন ইগর কিয়েরেঙ্কো (৩৯)। ইউক্রেনীয় এ পিতা তার পরিবার-পরিজনকে নিরাপদে রাখতে অন্যত্র পাঠিয়ে দিয়েছেন। কিন্তু নিজে রণাঙ্গনে থেকে গেলেন। রুশ সে'নাদের হা'মলার মুখেও কিয়েভ না ছাড়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন তিনি।

কিয়েভের একটি রেলস্টেশনে গিয়ে পরিবার-পরিজনকে ট্রেনে উঠিয়ে দেন ইগর। তাদের ট্রেনে উঠিয়ে দিয়ে ট্রেনের জানালার কাচ ধরে অঝোরে কাঁদছিলেন ইগর। তখন সেখানে এক হৃদয়বিদারক দৃশ্যের অবতারণা হয়।

ইগর তার স্ত্রী', সাবেক স্ত্রী', দুই শি'শু, মা, খালা ও শ্বাশুড়িকে ট্রেনে উঠিয়ে দেন। তাদের নিরাপদ স্থানে পৌছে দিয়ে কিয়েভকে রক্ষায় থেকে গেছেন ইগর।

স্টেশনে তিনি আনাদোলুর প্রতিবেদককে বলেন, আমা'র পরিবারের সাত সদস্যকে এলভিভে পাঠিয়ে দিয়েছি। আমা'র দুই সন্তানের একজন প্রতিব'ন্ধী। এ কথা বলার সময় তার গাল বেয়ে পানি পড়ছিল।

এই যুবক বলেন, আমা'র শহরকে রক্ষায় আমি রয়ে গেছি।

রাশিয়ার এস-৩০০ ক্ষেপণাস্ত্রব্যবস্থা মাকারিভে পৌঁছে গেছে বলে জানান ইগর। তার দাবি, রুশ প্রেসিডেন্ট পয়েন্ট অব নো রিটার্নে চলে গেছেন। সব শত্রুকে পরাজিত করে আম'রা কিয়েভকে রক্ষা করব।

Back to top button

You cannot copy content of this page