মাত্র ১৮ বছর বয়সে বিয়ে করেন সোনামনি, রইলো ‘মোহর’ সিরিয়ালের ‘মোহর’-এর আসল পরিচয়

সম্প্রতি বাংলা টেলিভিশন জগতের অ'তি জনপ্রিয় একটি মুখ হল সোনামনি সাহা। এই নামে তাঁকে অধিকাংশ মানুষ না চিনলেও মোহর নামে তাঁকে সকলেই চেনে তা আর বলার অ'পেক্ষা রাখেনা।

স্টার জলসার পর্দায় ‘মোহর’ ধারাবাহিকে অ'ভিনয় করার পর থেকেই তিনি জনপ্রিয়তা লাভ করেন। এর আগেও তাঁকে স্টার জলসার ই ‘দেবী চৌধুরানী’ নামের একটি সিরিয়ালে অ'ভিনয় করতে দেখা গিয়েছিল।তবে, ‘মোহর’ সিরিয়াল করে তিনি অল্প দিনের মধ্যেই দর্শকদের চোখে বেশ জনপ্রিয় হয়ে ওঠেন। অ'ভিনেতা বলুন বা অ'ভিনেত্রী সিরিয়াল বা সিনেমা'র বাইরে গিয়ে সকলেরই ব্যাক্তিগত জীবন বলে কিছু থাকে।

আর দর্শকরা তাঁদের পছন্দের তারকার জীবন স'ম্পর্কে জানতে বেশ আগহী হয়। চলুন আজ আপনাদের জানাবো সোনামনি সাহা ওরফে মোহর এর জীবনের কিছু অজানা কথা।অনেকের মনেই প্রশ্ন যে মোহর বাস্তব জীবনে বিবাহিত নাকি সিঙ্গেল? নাকি চুপিসারে প্রে'ম করছে কারোর সঙ্গে। তাহলে শুনুন। ২০১৫ সালে মাত্র ১৮ বছর বয়সে ডান্স কোরিওগ্রাফার সুব্রত রায়ের সঙ্গে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হয় সোনামনি সাহা।

তবে, তাঁদের স'ম্পর্কটা খুব বেশিদিন টেকেনি। একটা সময় পর স্বামীর থেকে আলাদা থাকতেন তিনি। তারপর নিজের ইচ্ছেতেই সেপারেশন নেন।সাইকোলজি নিয়ে পড়া সোনামনি সাহা বেশ ক'ষ্ট করেই এই টেলিভিশন এর পর্দায় পা রাখেছেন।এক সাক্ষাৎকারে তিনি এও বলেছিলেন যে, তার বাবা, তাঁর শ্বশুরবাড়ির লোক এমনকি তার স্বামীর সাপোর্ট ছাড়া তিনি কখনই এই কাজ করতে পারতেন না। এমনকি তিনি এও বলেন যে, তাঁর ছোড়দা না থাকলে তিনি এই জায়গায় আসতে পারতেন না।

কেননা, তার ছোড়দা ই তাঁর বাবাকে রাজি করিয়েছেন। আর ছোড়দা র কথাতেই তাঁর বাবা রাজি হন। এমনকি তিনি যখন প্রথম দিকে কাজ শুরু করেন তখন তাঁর ছোড়দা ই তাঁর সঙ্গে যেত সব জায়গায়।এরপর পর্দায় ‘ দেবী চৌধুরানী’ সিরিয়াল দেখে তাঁর বাবা খুব খুশি হন বলেই জানিয়েছেন সোনামনি। অ'ভিনয়ের পাশাপাশি নাচে- গানেও বেশ দক্ষ তিনি। সম্প্রতি সোনামনি সাহা ওরফে মোহরের জীবনের এই অজানা তথ্য ই প্রকাশ্যে এসেছে।

Back to top button

You cannot copy content of this page