একটি শিক্ষনিয় গল্প ১ মিনিট সময় নিয়ে পড়ুন # অনেক বছর আগের কথা, একবার এক মা তার ছে'লেকে আল্লাহর প্রতি বিশ্বা'স গড়ে তোলার জন্য……

শিক্ষনিয় গল্প এক মিনিট সময় নিয়ে পড়ুন আপনার মনে খুব আনন্দ লাগবে গল্পটা পড়ে? এক মা তার ছোট্ট ছে'লেকে ছোট বেলা থেকে আল্লাহর প্রতি বিশ্বা’স গড়ে তোলার জন্য প্রতিদিন একটা কৌশল অবলম্বন করতো।।

যেমন : ছে'লেটি যদি তার মাকে এসে বলতো, মা, আমা’র ক্ষুধা লেগেছে খেতে দাও।।তখন মা বলতো আমা’র কাছে না, আল্লাহর কাছে চাও। তাহলেই পেয়ে যাব’ে। ছে'লেটি জিজ্ঞেস করলো,, আল্লাহর কাছে কিভাবে চাইবো?? মা বললেন,, নামাজ পড়ে আল্লাহর কাছে দোয়া করে চাইতে হয়।। তাহলেই আল্লাহ তাআলা তোমাকে খাবার দিবেন।। ছোট্ট ছে'লেটি মায়ের কথা অনুযায়ী অযু করে নামাজে দাড়িয়ে গেলো। আর আল্লাহর কাছে দোয়া করতে লাগলো,, ‘হে! আল্লাহ আমা’র প্রচন্ড ক্ষুধা পেয়েছে,, আমাকে কিছু খাবার দাও ‘। আড়ালে লুকিয়ে মা ছে'লেকে নামাজ পড়ছে রেখে মনে

মনে খুব খুশি হয়। ছে'লের নামাজ পড়া শেষ হওয়ার আগেই ছে'লের পেছনে খাবারের থালা রেখে চলে যায়।। আর ছে'লেটি যখন নামাজ শেষ করে পেছন ফিরে খাবার দেখে,, সে তো মহাখুশি। দৌড়ে মাকে ডেকে এনে দেখায়,, মা দেখো,, আল্লাহ আমা’র দোয়া কবুল করেছেন। আমাকে খাবার দিয়েছেন।। মা হেসে বলেন, হ্যাঁ বাবা, আল্লাহর কাছে তার বান্দা কিছু চাইলে আল্লাহ অবশ্যই তাকে দেন।। ছে'লেটি এখন প্রতিদিন নামাজ পরতো।

যখনই ক্ষুধা লাগতো তখনই নামাজে দাড়িয়ে আল্লাহর কাছে চাইতো। আর পিছনে ফিরলেইই খাবার পেতো। এমনিভাবে সে খুব আল্লাহ ভক্ত হয়ে যায়। হঠাৎ একদিন ছে'লেটির মা কোথায় যেন বেড়াতে গিয়েছিলেন। কিন্তু আ’ত্মীয়স্বজন দের জো'রাজুরিতে আসতে পারছিলেন না। অবশেষে ঐ দিন ঐ আ’ত্মীয়ের বাড়িতে ই থেকে গেলেন। কিন্তু মায়ের মন..তিনি তো খুব চিন্তায় আছেন, ভাবছেন আজ যদি ছে'লের ক্ষুধা লাগে, আর ছে'লে যদি নামাজ পড়ে খাবার না পায়, তাহলে তো আল্লাহর উপর তার বিশ্বা’স টা নষ্ট হয়ে যাব’ে। এতদিন তো মা তার ছে'লের পিছনে খাবার রাখতো। কিন্তু আজ কি হবে? এই ভাবতে ভাবতে মা খুব কা'ন্না করলেন।

পরদিন খুব সকালেই মা বাড়িতে এসে ছে'লেকে জিজ্ঞেস করলেন, তুমি কি গতকাল খাবার খেয়েছো। ছে'লে বললো, হ্যাঁ খেয়েছি। মা অ'বাক হয়ে জিজ্ঞেস করেন, কিন্তু কিভাবে? ছে'লে বললো, কেন এতদিন যেভাবে খেয়েছি, সেইভাবেই। বরং গতকাল সবচাইতে সুস্বাদু খাবার খেয়েছি। এতদিন তো, প্রতিদিন ই খুব সাধারণ খাবার খেয়েছি।

কিন্তু গতকাল, নামাজ শেষ করার আগেই খাবারের সুঘ্রাণ আমা’র নাকে আসে, তখনি বুঝতে পারি আমা’র খাবার এসে গেছে। ছে'লের মুখ থেকে এই কথা শুনে মা সাথে সাথে শুকরিয়ার নামাজে দাড়িয়ে আল্লাহর শুকরিয়া আ’দায় করেন।। আল্লাহ তাআলা তাঁর সকল বান্দাদেরকে ই ভালবাসেন। শুধু আল্লাহর প্রতি দৃঢ় বিশ্বা’স থাকলে যে কোন কাজ ই সফল হওয়া যায়। প্রয়োজনে একটু ধৈর্য আর আল্লাহর প্রতি বিশ্বা’স। হে আল্লাহ আমা’দের কে আপনি সেই তৌফিক দান করুন. আম'র’া যেন ।। আপনার উপরে বিশ্বা’স। রাখেতে পারি । এবং ধৈর্য ধারণ করতে পারি আমিন

Back to top button

You cannot copy content of this page