শৈত্যপ্রবাহ থাকছে আরো কয়েকদিন

পৌষের শেষ দিন আজ। এরপরই শুরু হচ্ছে শীতের শেষ মাস মাঘ। ষড়ঋতুর হিসাবে পৌষ-মাঘ শীতকাল। পৌষের শীত এবার ততটা প্রভাব তৈরি করতে সম'র্থ হয়নি। তবে মাঘের শুরুতেই শৈত্যপ্রবাহের আগমন বার্তা দিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর।

আবহাওয়া অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে, দেশের বেশকিছু স্থানে মৃদু শৈত্যপ্রবাহ চলছে। এটি ২-৩ দিন স্থায়ী হতে পারে। বিশেষ করে উত্তরাঞ্চলে শৈত্যপ্রবাহের প্রভাবে রাজধানীতেও শীত বেড়েছে। শৈত্যপ্রবাহটি আরো তীব্রতা পেতে পারে।

আবহাওয়াবিদরা জানান, রাজশাহী, পাবনা, নওগাঁ, দিনাজপুর, কুড়িগ্রাম ও সৈয়দপুরে শৈত্যপ্রবাহ থাকবে। এর প্রভাব রাজধানীসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে পড়বে।বুধবার রাজধানীর তাপমাত্রাও কমেছে। এদিন তাপমাত্রা ছিল ১৫ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। এর আগের দিন রাজধানীতে ১৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা ছিল।

আজ বৃহস্পতিবার উত্তরাঞ্চলের কয়েকটি জে'লায় তাপমাত্রা ছয় থেকে আট ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে চলে আসতে পারে।আবহাওয়া অধিদপ্তরের পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, দেশের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চল দিয়ে বয়ে যাওয়া মৃদু শৈত্যপ্রবাহটি একই এলাকা দিয়ে বয়ে যেতে পারে। দিন ও রাতের তাপমাত্রা আরো কমতে পারে।

পূর্বাভাসে আরো বলা হয়েছে, শৈত্যপ্রবাহটি পাবনা, নওগাঁ, দিনাজপুর, সৈয়দপুর ও কুড়িগ্রাম অঞ্চলের ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। বুধবার দেশে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা নওগাঁর বদলগাছীতে ৭ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস ও সর্বোচ্চ কক্সবাজারে ৩০ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে।

অধিদপ্তরের জানুয়ারি মাসের দীর্ঘমেয়াদী বি'জ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছিল, এ মাসে দেশে ১-২টি শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে। এর মধ্যে একটি তীব্র শৈত্যপ্রবাহে রূপ নিতে পারে। তখন তাপমাত্রা ৪-৬ ডিগ্রিতে নামতে পারে।

Back to top button

You cannot copy content of this page